ফের টেস্টে ধোনি

dniস্পোর্টস ডেস্ক ।। সম্প্রতি টেস্ট ক্রিকেট থেকে ধোনির অবসর গ্রহণের পরই না না ধরণের জল্পনা চারপাশে ঘুরে বেড়াচ্ছিল। শোনা যাচ্ছিল, ধোনি এবং বিরাটের মধ্যে সম্পর্ক স্বাভাবিক নেই। কোহলির থেকে ধোনি কিছুটা দূরত্বও নাকি বজায় রেখে চলেছেন। গুজব ছিল, কোহলির সঙ্গে সম্প্রতি টিম ডিরেক্টর রবি শাস্ত্রী মুখ খুললেন সকল রহস্য নিয়ে।
ধোনির অবসর গ্রহণের সিদ্ধান্তের পিছনে অনেকটা কাজ করেছে। তবে এই সমস্ত জল্পনায় জল ঢেলে, এক হিন্দি দৈনিককে দেওয়া সাক্ষাত্কারে রবি শাস্ত্রী জানিয়েছেন, মাহি এবং কোহলির মধ্যে এইমুহূর্তে সবকিছুই যথেষ্ট স্বাভাবিক রয়েছে।
টিম ডিরেক্টর শাস্ত্রীর দাবি,এই সমস্ত জল্পনা একেবারেই ভিত্তিহীন। ড্রেসিংরুমে কোনও সমস্যাই নেই। শাস্ত্রীর দাবি, শুধু বিরাট নয়, দলের সমস্ত প্লেয়ারাই ধোনিকে আগের মতোই সম্মান করেন। এমনকি, টিমের সাপোর্ট স্টাফদের কাছেও ধোনি এখনও একইরকম সম্মানীয়।
রবি শাস্ত্রী আরও জানিয়েছেন, সিডনি টেস্টে, ধোনি স্ট্যান্ডবাই উইকেট রক্ষক হিসেবে থাকবেন। ঋদ্ধিমান সাহা স্টাম্পের পিছনে থাকলেও, প্রয়োজনে মাঠে নামতে পারেন ধোনি। তিনি বলে চলেন, বিরাট অধিনায়কত্ব নেওয়ার পর স্বাভাবিক ভাবেই ড্রেসিংরুমের পরিস্থিতির কিছুটা পরিবর্তন হলেও, তার কোনও কুপ্রভাব পড়েনি। শাস্ত্রীর দাবি, তিনিও বহু অধিনায়কের অধিনায়কত্বে ম্যাচ খেলেছেন। প্রত্যেকরেই নিজস্ব স্টাইল থাকে, কিন্তু তাতে বড় ধরণের কোনও পরিবর্তন হয় না।
ধোনির অবসরের সিদ্ধান্তে স্তম্ভিত হয়ে যায় দল, দাবি টিম ডিরেক্টরের। দলের কেউ এব্যাপারে কোনও আঁচ করতে পারেননি আগে থেকে। তবে সব প্লেয়ারকেই একদিন থামতে হয়, এটাই বাস্তব, এটাই সত্যি। তিনি আরও বলেন, হয়তো ধোনি বুঝতে পেরেছিলেন টিমের সঙ্গে থাকায় তার দলেরই ক্ষতি হচ্ছে।
টেস্ট থেকে অবসর গ্রহণের পর, ধোনি অস্ট্রেলিয় প্রধানমন্ত্রী টনি অ্যাবটের চা চক্রেও যাননি। শাস্ত্রী আরও জানিয়েছেন, টেস্ট চলাকালীন ধোনি অস্ট্রেলিয়াতে থাকলেও, টিমের সঙ্গে এক হোটেলে থাকবেন না। -আনন্দবাজার।

FacebookTwitterGoogle+Share

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*